bdstall.com

২.৫ টন এসি এর দাম

আইটেম ১-১৬ এর ১৬

বছরের প্রায় দীর্ঘ সময় তাপমাত্রা বেশি থাকায় উচ্চ ক্ষমতাসম্পন্ন এসির চাহিদা অনেকাংশে বেড়েছে। ২.৫-টন এসি বাংলাদেশে বাড়ি, অফিস এবং ব্যবসায় উচ্চ-তাপমাত্রার পরিবেশ দ্রুত ঠান্ডা করার জন্য ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। এই ক্যাপাসিটির এসি কার্যকরভাবে ২৪০ থেকে ৩০০ বর্গফুট এরিয়া দ্রুত ঠান্ডা করতে সক্ষম। ২.৫ টন এসিতে ভ্যারিয়েবল স্পিড কম্প্রেসার, ইন্টেলিজেন্ট টেম্পারেচার সেন্সর, ওয়াই-ফাই কানেক্টিভিটি এবং ইকো-ফ্রেন্ডলি রেফ্রিজারেন্টস ব্যবস্থা যুক্ত রয়েছে যা রুমকে দ্রুত ঠান্ডা করে পাশাপাশি বিদ্যুৎ খরচ কম হয় এবং পরিবেশের উপর ক্ষতিকর প্রভাব কম হয়। বর্তমানে, মিডিয়া, এলজি, স্যামসাং এবং গ্রী সহ বিভিন্ন ব্র্যান্ডের ২.৫ টন এসি বাংলাদেশে সাশ্রয়ী দামে পাওয়া যায়।

২.৫ টন এসির দাম কত?

২.৫-টন এসির দাম নতুন ও পুরাতন কন্ডিশনের পাশাপাশি ব্র্যান্ড, টেকনোলোজি, কোয়ালিটি, টাইপ এবং ফিচার সমূহের উপর নির্ভর করে পরিবর্তিত হয়ে থাকে। বাংলাদেশে ২.৫-টন এসির দাম ৬০,০০০ টাকা থেকে শুরু যা নন-ইনভার্টার, স্প্লিট এসি, ওয়াশেবল এয়ার ফিল্টার এবং ডিজিটাল টেম্পারেচার কন্ট্রোল ইত্যাদি ফিচার যুক্ত রয়েছে। ফ্যান স্পীড কন্ট্রোল, অটোমেটিক এয়ার ফ্লো এডজাস্ট, ওয়্যারলেস রিমোট কন্ট্রোল, ৩ স্টেজ এনার্জি ইফিশিয়েন্ট ইত্যাদি উন্নত ফিচার সমূহ যুক্ত ২.৫ এসি ১০০,০০০ টাকা বাজেটের মধ্যে পাওয়া যায়। তবে, ২.৫-টন সেন্ট্রাল এসিও বাংলাদেশে পাওয়া যায়, যার দাম তুলনামূলকভাবে বেশি।

২.৫ টন এসি ব্যবহারের সুবিধা কি?

১। ২.৫-টন এসি ছোট ইউনিটের এসির তুলনায় বেশি এরিয়ার কুলিং সক্ষমতা রয়েছে, যা আবাসিক বাড়ি, অফিস কিংবা ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মাঝারি থেকে বড় আকারের রুমের জন্য উপযুক্ত।

২। গরম এবং আর্দ্র অবস্থায় নির্দিষ্ট স্থানটিকে দ্রুত এবং কার্যকরভাবে ঠান্ডা করে আরামদায়ক পরিবেশ তৈরি করে৷

৩। ২.৫-টন এসিতে বিদ্যুৎ-সাশ্রয়ী ফিচার সহ বিভিন্ন টেকনোলোজি যুক্ত রয়েছে যা বিদ্যুৎ খরচ কমাতে সহায়তা করে।

৪। এই ক্যাপাসিটির এসি বিশেষ করে মাঝারি থেকে বড় আকারের রুমের জন্য ডিজাইন করায় এসির ইউনিটের উপর অতিরিক্ত চাপ প্রয়োগ ছাড়াই পর্যাপ্ত শীতলতা প্রদান করে।

৫। ২.৫-টন এসিতে প্রোগ্রামেবল টাইমার, রিমোট কন্ট্রোল অপারেশন, স্লিপ মোড, এবং এয়ার ফিল্টার সহ বিভিন্ন ফিচার যুক্ত রয়েছে যা ব্যবহার বিভিন্ন সুবিধা প্রদান করার পাশাপাশি বায়ুর গুণমান উন্নত করে।

৬। উচ্চ শীতল ক্ষমতা সম্পন্ন হওয়ায় ২.৫-টন এসি দীর্ঘসময় রুমের ভিতরের পরিবেশ সামঞ্জস্যপূর্ণ এবং আরামদায়ক তাপমাত্রা বজায় রাখে।

৭। স্প্লিট, উইন্ডো, ওয়াল মাউন্ট, ক্যাসেট, ফ্লোর স্ট্যান্ডিং এবং সেন্ট্রাল ২.৫ টন এসি সমূহ ইনভার্টার এবং নন-ইনভার্টার উভয় টেকনোলোজিতে পাওয়া যায় এবং সহজ ইন্সটলেশন সুবিধা প্রদান করে।

কি পরিমাণ বিদ্যুৎ খরচ হয় ২.৫-টন এসি ব্যবহারে?

২.৫-টন এসির বিদ্যুৎ খরচ মূলত ব্যবহারের ধরণের উপর নির্ভর করে পরিবর্তিত হয়ে থাকে। ২.৫-টন নন- ইনভার্টার এসি পূর্ণ ক্ষমতায় চলাকালীন সময়ে গড়ে প্রতি ঘন্টায় প্রায় ৩,২০০ ওয়াট বিদ্যুৎ খরচ হয়। এছাড়া, নন-ইনভার্টার ২.৫-টন এসির তুলনায় ২.৫-টন ইনভার্টার এসি ব্যবহারে শতকরা ৬০ ভাগ কম বিদ্যুৎ খরচ কম হয়। তবে, ২.৫ এসি ব্যবহারের সময়কাল, তাপমাত্রা সেটিংসের এবং ইনভার্টার ও নন-ইনভার্টার টেকনোলিজির উপর নির্ভর করে বিদ্যুৎ খরচ কম বেশি হয়ে থাকে।

২.৫ টন এসি কি একাধিক রুম ঠান্ডা করতে পারে?

হ্যা, ২.৫-টন এসি পাশাপাশি সংযুক্ত একাধিক রুম ঠান্ডা করতে পারে। তবে, একাধিক রুমের মধ্যে সঠিক বায়ুপ্রবাহ ও শীতলতা নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে ফ্যান ব্যবহার করা গুরুত্বপূর্ণ।